সানিয়া মির্জা ও শোয়েব মালিকের পুত্র সন্তানের নাগরিকত্বকে কেন্দ্র করে বিতর্ক পাকিস্তানে
On 2 Nov, 2018 At 10:05 PM | Categorized As Sport | With 0 Comments
লাহোর, ২ নভেম্বর (হি.স.) : সানিয়া মির্জা ও শোয়েব মালিকের শিশু সন্তান ইজহান মির্জা-মালিককে ঘিরে শুরু বিতর্ক৷ জন্মের মাত্র তিন দিনের মধ্যেই বিতর্ক শুরু হয়ে গেল৷ এই বিতর্কের সূত্রপাত পাক সংবাদমাধ্যমেই৷
গত ৩০ অক্টোবর হায়দরাবাদের রেনবো হাসপাতালে সানিয়া মির্জা পুত্র সন্তানের জন্ম দেন৷ পিতা শোয়েব মালিক সোশ্যাল মিডিয়ায় সানিয়ার মা হওয়ার খবর জানান অনুরাগীদের৷ পাক ক্রিকেটমহলে শোয়েবের পিতা হওয়া নিয়ে খুশির বাতাবরণ থাকলেও তাঁর সন্তানের নাগরিকত্ব নিয়ে প্রশ্ন তোলে পাক মিডিয়া৷ ওদেশের এক বহু প্রচারিত উর্দু সংবাদমাধ্যম দাবি করে, পাকিস্তানের নাগরিকত্ব পাবে না শোয়েব-সানিয়ার ছেলে৷
পাসপোর্ট ও পাক অভিবাসন নীতি অনুযায়ী কোনও ভারতীয় নাগরিক পাকিস্তানের নাগরিকত্ব পেতে পারে না৷ ১৯টি দেশের সঙ্গে পাকিস্তানের দ্বৈত নাগরিকত্ব চুক্তি থাকলেও সেই তালিকায় নেই ভারতের নাম৷ যেহেতু শোয়েব মালিককে বিয়ে করেও সানিয়া ভারতীয় নাগরিকত্ব ত্যাগ করেননি, তাই ভারতে জন্ম নেওয়া তাঁর সন্তান কোনওভাবেই পাকিস্তানের নাগরিকত্ব পেতে পারে না৷ ছেলের নাগরিকত্ব নিয়ে অবশ্য কোনও সময়েই চিন্তিত ছিলেন না শোয়েব৷ কেননা এমন পরিস্থিতির কথা আঁচ করেই গত সেপ্টেম্বরে শোয়েব জানিয়েছিলেন, তাঁদের সন্তান পাকিস্তানের নাগরিক হবে না, ভারতেরও নয়৷ পাক ক্রিকেট তারকার কথায়, ‘নাগরিকত্ব গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নয়৷ যাই হোক, আমাদের সন্তান ভারতীয়ও হবে না, পাকিস্তানিও নয়৷’
ছেলের নামকরণকালে সানিয়া-শোয়েব দু’দজনেরই পদবি ব্যবহার করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন৷ এই কারণে ইজহানের পদবিতে মির্জা-মালিক ব্যবহার করা হচ্ছে৷ সানিয়া ২০১০ এপ্রিলে শোয়েবকে হায়দরাবাদি মুসলিম রীতি মেনে বিয়ে করলেও ভারতের হয়েই আন্তর্জাতিক পর্যায়ে প্রতিনিধিত্ব করেন তিনি৷

Leave a comment


Powered By JAGARAN – The first daily of Tripura ::: Design & Maintained By CIS SOLUTION