প্রকৃত সন্ত এবং জালিয়াতদের মধ্যে পার্থক্য করার ক্ষেত্রে সজাগ হতে হবে : অশোক গেহলট
On 25 Apr, 2018 At 09:42 PM | Categorized As Diner Khobor | With 0 Comments
0 Shares

নয়াদিল্লি ও যোধপুর, ২৫ এপ্রিল (হি.স.): নাবালিকা ধর্ষণ মামলায় দোষীসাব্যস্ত হয়েছেন স্বঘোষিত ধর্মগুরু আসারাম বাপু| এছাড়াও ২০১৩ সালের নাবালিকা ধর্ষণ মামলায় যোধপুরের বিশেষ আদালতে দোষীসাব্যস্ত হয়েছেন অপর দুই অভিযুক্ত শরদ এবং প্রকাশ| গুজরাটেও একটি ধর্ষণ মামলাতে অভিযুক্ত আসারাম বাপু| গুজরাটের সুরাটে আসারাম ও তার ছেলের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ এনেছেন দুই বোন|

বুধবার যোধপুরের বিশেষ আদালতে আসারাম বাপু দোষীসাব্যস্ত হওয়ার পরই কংগ্রেস নেতা অশোক গেহলট জানিয়েছেন, ‘সময় এসে গিয়েছে, প্রকৃত সন্ত এবং জালিয়াতদের মধ্যে পার্থক্য করার ক্ষেত্রে এবার সাধারণ মানুষকে আরও বেশি সজাগ হতে হবে| এই ধরনের ঘটনার ফলে আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে ভারতের ভাবমূর্তি নষ্ট হচ্ছে|’ প্রসঙ্গত, ২০১৩ সালে ১৬ বছর বয়সি একটি কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার হয়েছিলেন স্বঘোষিত ধর্মগুরু আসারাম বাপু| উত্তর প্রদেশের শাহজাহানপুরের ওই মেয়েটিকে যোধপুরের কাছে একটি আশ্রমে যৌন হেনস্থার অভিযোগ উঠেছিল আসারাম বাপুর বিরুদ্ধে|আসারাম ছাড়াও অপর চারজন অভিযুক্ত হলেন শিব, শিল্পি, শরদ ও প্রকাশ| তাদের বিরুদ্ধে পকসো ও তফশিলী জাতি ও তফশিলী উপজাতি (অত্যাচার প্রতিরোধ) ও ভারতীয় দণ্ডবিধির বিভিন্ন ধারায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছিল| ২০১৩ সালের নাবালিকা ধর্ষণ মামলায় বুধবার যোধপুরের তফশিলী জাতি ও তফশিলী উপজাতি আদালতে দোষীসাব্যস্ত হয়েছেন আসারাম বাপু, শিবা এবং শিল্পি|

0 Shares

Leave a comment


Powered By JAGARAN – The first daily of Tripura ::: Design & Maintained By CIS SOLUTION